International

আরও কাছাকাছি ভারত-ফ্রান্স, দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক মজবুত করতে ঝটিকা সফরে ফ্রান্সে প্রধানমন্ত্রী

নয়াদিল্লি : আরও কাছাকাছি ভারত-ফ্রান্স। চলতি বছর মে মাসে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের সম্মেলনে যোগ দিতে ৮ মে পোর্তুগাল যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী  নরেন্দ্র  মোদী। সেখান থেকে তাঁর ফ্রান্স সফরে যাওয়ার কথা রয়েছে।

তবে এর আগে ২০১৯ সালে ফরাসী প্রেসিডেন্ট ইমান্যুয়েল ম্যাঁকরের আহ্বানে ফ্রান্স সফরে গিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী । সেই সময় জি৭ সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেছিলেন তিনি। আর তারপর থেকেই ভারত-ফ্রান্সের মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্ক আরও মজবুত হয়েছে। বিশেষ করে করোনার সময়ে এই দুই দেশের মধ্যে আন্তর্জাতিক সম্পর্ক আরও দৃঢ় হয়েছে।

যদিও প্রধানমন্ত্রীর ইউরোপ সফরে আগে দু দিনের সফরে ভারতে আসছেন ফ্রান্সের বিদেশমন্ত্রী জিন ইয়েভেস লে ড্রিয়ান। আগামী ১৩ থেকে ১৫ এপ্রিল ভারত সফরে থাকবেন তিনি। তবে জিন ইয়েভেসের ভারতে সফরের মূল উদ্দেশ্য হল  এই সময় তিনি ভারত-ফ্রান্স ও অস্ট্রেলিয়ার বিদেশ মন্ত্রীদের নিয়ে একটি বৈঠকে বসবেন। তবে এর আগে অবশ্য  আগামী ৫ থেকে ৭ এপ্রিল বঙ্গোপসাগরে কোয়াড নৌ মহড়া চলবে। সেখানে ফ্রান্সের যুদ্ধজাহাজের সঙ্গে ভারতের যুদ্ধজাহাজও এই মহড়ায় অংশ  নেবে। পাশাপাশি থাকবে আমেরিকা, জাপান ও অস্ট্রেলিয়ার যুদ্ধ জাহাজ।

শুধু তাই নয়, সামরিক দিক থেকে আরও শক্তিশালী হতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র  মোদীর নেতৃত্বে ইতিমধ্যে ফ্রান্সের সঙ্গে ৩৬ টি রাফাল চুক্তি হয়েছে ভারতের। তারমধ্যে অবশ্য ২১ টি ইতিমধ্যে দেশে চলে এসেছে। তবে শুধু ফ্রান্স নয়, ইতালি, ডেনমার্কের সঙ্গে সম্পর্ক মজবুত করতে বদ্ধপরিকর ভারত। যারফলে খুব শীঘ্রই  দ্বিতীয় নর্ডিক সম্মেলনে যোগ দিতে ডেনমার্ক সফরে যাবেন প্রধানমন্ত্রী ।

এরআগে ২০১৮ সালে স্টকহোমে এই শীর্ষ সম্মেলন আয়োজিত হয়েছিল। যদিও আগামী মে মাসে একটি স্বাস্থ্য সম্মেলনের আয়োজন করতে চলেছে ইতালি। তবে করোনার কারণে এই সম্মেলন ভার্চুয়ালি হবে কি না তা এখনও জানা যায়নি। এছাড়াও জি-২০ সসম্মেলনেরও আয়োজক দেশ ইতালি। চলতি বছর  ৩০ ও ৩১ অক্টোবর এটি অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে রোমে।

মহামারীর কারণে গত বছর জি-২০ সম্মেলন সৌদি আরবে ভার্চুয়ালি করা হয়েছিল। তবে এই জি-২০ এর সদস্য দেশ হিসেবে ভারতও রয়েছে। যদিও ২০২৩ সালে জি-৭ সামিট ভারতে আয়োজিত হওয়ার কথা রয়েছে ।

এছাড়াও চলতি বছর এপ্রিল মাসে ভারত সফরে আসছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। অন্যদিকে আগামী ১১-১৩ জুন ব্রিটেনে আয়োজিত জি-৭ সামিটে যোগ দিতে ব্রিটেন যাবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

লাল-নীল-গেরুয়া…! ‘রঙ’ ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা ‘খাচ্ছে’? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম ‘সংবাদ’!

‘ব্রেকিং’ আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের।

কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে ‘রঙ’ লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে ‘ফেক’ তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই ‘ফ্রি’ নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.
হ্যাঁ, আমি অনুদান করতে ইচ্ছুক >

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।

Back to top button