আন্তর্জাতিক

কাশ্মীরের উন্নয়নেই পাকিস্তানের সন্ত্রাসের ছক বানচাল হবে : জয়শঙ্কর – আগাম বার্তা

ওয়াশিংটন : কেন্দ্রীয় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্করের নিশানায় ফের একবার পাকিস্তান৷ এদিন উচ্চপদস্থ মার্কিন আধিকারিকদের সামনে পাকিস্তানের উদ্দ্যেশ্য নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তিনি৷ তাঁর মতে কাশ্মীরে সন্ত্রাস চালানোর জন্য পাকিস্তান গত ৭০ বছর ধরে পরিকল্পনা করে আসছে৷ কিন্তু নয়াদিল্লির ৩৭০ ধারা প্রত্যাহারের পর সেই পরিকল্পনা ভেস্তে যায়৷

জয়শঙ্করের দাবি এরপর যখন কাশ্মীরের উন্নয়ন শুরু হবে তখন পাকিস্তানের যাবতীয় সন্ত্রাস ছড়ানোর ছক বানচাল হবে৷ ওয়াশিংটনে দাঁড়িয়ে ভারতের বিদেশমন্ত্রী বলেন কাশ্মীর থেকে ইন্টারনেট পরিষেবা প্রত্যাহার করার সিদ্ধান্ত সাময়িক৷ খুব দ্রুত পরিস্থিতির পরিবর্তন হবে৷ সাধারণ মানুষের নিরাপত্তার স্বার্থেই কেন্দ্র এই সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হয়েছে৷

কাশ্মীরে শান্তি ফেরানোই মোদী সরকারের প্রথম ও প্রধান লক্ষ্য বলে দাবি করে জয়শঙ্কর বলেন সন্ত্রাস বন্ধই একমাত্র পথ৷ যাতে আর কোনও প্রাণহানি উপত্যকায় না হয়, সেজন্য সচেষ্ট কেন্দ্র সরকার৷ সেন্টার ফর স্ট্র্যাটেজিক অ্যাণ্ড ইন্টারন্যাশনাল স্টাডিজে বিদেশনীতি নিয়ে বক্তব্য রাখেন জয়শঙ্কর৷ সেখানেই উঠে আসে কাশ্মীর প্রসঙ্গ৷ স্বাভাবিকভাবেই পাকিস্তানের সমালোচনা করে বিদেশমন্ত্রী বলেন কাশ্মীর নিয়ে কখনই গঠনমূলক কিছু করেনি পাকিস্তান৷ ফলে সন্ত্রাস মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে পেরেছে৷

সীমান্ত সুরক্ষার প্রশ্নে ভারত কোনও আপোষ করবে না বলে এদিন জানিয়ে দেন জয়শঙ্কর৷ এর আগে জয়শঙ্কর জানিয়ে ছিলেন ভারতের সঙ্গে পাকিস্তানের কোনও তুলনা চলতে পারে না৷  জয়শঙ্করের স্পষ্ট বক্তব্য যে, যদি যুক্তিগতভাবে কথা হয় তাহলে ভারত ও পাকিস্তানের কোন তুলনামূলক আলোচনা হওয়া উচিৎ নয়।

তিনি বলেন কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপের পর থেকে পাকিস্তানকে ভারতের সঙ্গে ‘হাইফেন’ দিয়ে সংযোগ করাটা ভূল। তারাই সমস্যা তৈরি করছে যারা অগস্টের ৫ তারিখের পর থেকে জম্মু ও কাশ্মীরের উন্নতি সহ্য করতে পারছেন না।

Leave a Reply

Back to top button
Close