Bangladesh

তালা ভেঙে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীদের মেসে প্রবেশের চেষ্টা

: শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শাবি) প্রধান ফটকের সামনে অবস্থিত ছাত্রীদের মেসের রুমের তালা ভেঙে ভেতরে প্রবেশের চেষ্টাকালে এক যুবককে আটক করে গণপিটুনি দিয়েছে স্থানীয়রা। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনের সহায়তায় পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয় তাকে।

বৃহস্পতিবার (২১ জানুয়ারি) সকালে এই ঘটনা ঘটে। আটক ওই যুবকের নাম সাজ্জাদ হোসেন মঞ্জু।

প্রত্যক্ষদর্শী এক ছাত্রী জানায়, সকাল ৯টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটক সংলগ্ন ইনায়া ম্যানশন নামের ছাত্রী মেসের চতুর্থ তলার মূল দরজার তালা ভেঙে করিডরে প্রবেশ করে বহিরাগত এক যুবক। পরে একটা রুমের তালা ভাঙার চেষ্টা করে সে। এসময় চতুর্থ তলায় মেসে থাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রী তাকে দেখতে পান। এসময় যুবকটি ওই ছাত্রীকে দেখে তার ওপর চড়াও হয়ে হুমকি দেন এবং অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করেন। পরে ওই ছাত্রী চিৎকার দিলে যুবকটি পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। এসময় ওই মেসের ছাত্রীদের চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে ওই যুবককে আটক করে গণপিটুনি দেয় এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরিয়াল বডি আসলে তাদের সহায়তায় এবং তাদের উপস্থিতিতে জালালাবাদ থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। এসময় ছাত্রীরা তাদের নিরাপত্তার দাবি জানান বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনের কাছে।

জালালাবাদ থানার সহকারী উপপরিদর্শক আসাদুজ্জামান বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও মালিক পক্ষ থেকে কেউ বাদি হতে রাজি না হওয়ায় আমরা ৮৭ ধারার তাকে আদালতে চালান করে দিয়েছি।

অন্যদিকে এই ঘটনার পর নিজেদের নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কিত হয়ে পড়েছেন মেসে থাকা ছাত্রীরা। লোকপ্রশাসন বিভাগের শেষ বর্ষের শিক্ষার্থী মেহনাজ মৌমিতা বলেন, এই ঘটনার পরে আমরা যারা বিভিন্ন মেসে থাকি সবাই এখন আমাদের নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কিত। এই অবস্থায় প্রশাসনের কাছে শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার জোর দাবি জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর আবু হেনা পহিল বলেন, আমরা বিষয়টি জানার পরে দ্রুত সেখানে যাই এবং ওই যুবককে পুলিশের কাছে সোপর্দ করি। অন্যদিকে মেসের নিরাপত্তার জন্য বাসা মালিকের সঙ্গে কথা বলেছি। এছাড়াও শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা জোরদার করার জন্য সিলেটের পুলিশ প্রশাসনের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

সূত্রঃ zoombangla

Back to top button