Bangladesh

শেষ কর্মদিবসে রাবি ভিসির অবৈধ নিয়োগ, তদন্তে শিক্ষা মন্ত্রণালয়

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ভিসি এম আবদুস সোবহানের শেষ কর্মদিবসে দেওয়া অবৈধ ও বিধিবহির্ভূত নিয়োগের ঘটনায় তদন্তে চার সদস্যের একটি কমিটি গঠন করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

কমিটি আগামী সাত কার্যদিবসের মধ্যে রাবি ভিসি এম আবদুস সোবহানের শেষ কর্মদিবসে দেওয়া অবৈধ ও বিধিবহির্ভূত নিয়োগ এবং এর সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করে প্রতিবেদন দাখিল করবে।

বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) সদস্য প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আলমগীরকে আহ্বায়ক করে বৃহস্পতিবার এই কমিটি গঠন করে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

কমিটির দুই সদস্য হলেন- বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) সদস্য প্রফেসর ড. মো. আবু তাহের এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের যুগ্মসচিব ড. মো. জাকির হোসেন আখন্দ। কমিটির সদস্য সচিব ইউজিসির পরিচালক (পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়) মোহাম্মদ জামিনুর রহমান।

কয়েকদিন ধরে বিশ্ববিদ্যালয় নিয়োগ বাণিজ্য এবং নানা অনিয়ম নিয়ে ছাত্রলীগ ও শিক্ষকদের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছিল। এর মধ্যে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ভিসি এম আব্দুস সোবহানের শেষ কর্ম দিবসে কয়েকজনকে অবৈধভাবে নিয়োগ দেন। গত ৫ মে অস্থায়ী ভিত্তিতে (এডহক) বিশাল জনবল নিয়োগ দিয়েছেন ভিসি বলে জানা গেছে।

এই নিয়োগকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। বৃহস্পতিবার ১২টায় রাজশাহী মহানগর ছাত্রলীগ ও বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র জানায়, ভিসির বিদায় বেলায় টাকার বিনিময়ে ১২৫ জন ছাত্রলীগ নেতাকর্মীকে নিয়োগ দিয়েছেন বলে প্রচার শুরু হলে মহানগর ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ক্যাম্পাসে প্রবেশ করেন। পরে তাদের ওপর হামলা চালায় বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ। পরে দফায় দফায় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া প্রায় আধা-ঘণ্টা চলতে থাকে। পরে পুলিশ লাঠিচার্জ করলে আরও উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয় রেজিস্ট্রার আব্দুস সালামকে অব্যাহতি দিয়ে আব্দুল্লাহ আল মামুনকে নিয়োগের মাধ্যমে অস্থায়ী ভিত্তিতে ১২৫ জনকে নিয়োগ দিয়ে বিদায় নিয়েছেন ভিসি এম আব্দুস সোবহান বলে জানা গেছে।

Share this:

TwitterFacebook

সূত্রঃ zoombangla

Back to top button